Class XI Bengali Question Paper 2017

পশ্চিমবঙ্গ উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদের Class XI Bengali Question Paper 2017, উচ্চমাধ্যমিক একাদশ শ্রেণীর বাংলা প্রশ্নপত্র ২০১৭ উত্তর সহ আমরা শিক্ষার্থীদের জন্য তুলে ধরলাম।

Class XI Bengali Question Paper 2017

১। ঠিক উত্তরটি নির্বাচন করো : ১×১৮=১৮

১.১ ভূতের উপদ্রবে ঘরে টেকা দায় হয়

(ক) বুড়ো কর্তার

(খ) নাস্তিকের

(গ) বাচ্চাদের

(ঘ) গৃহস্থের

১.২ মহানগরী থেকে তেলেনাপোতার দূরত্ব কত ?

(ক) মাত্র দশ মাইল

(খ) মাত্র কুড়ি মাইল

(গ) মাত্র ত্রিশ মাইল

(ঘ) মাত্র পঁচিশ মাইল

১.৩ ‘পুলিশ দেখে ভয় পাওয়ার লোক সে নয়’ – এখানে যার কথা বলা হয়েছে –

(ক) সৌখী

(গ) সৌখীর বাবা

(খ) সৌখীর মা

(ঘ) সৌখীর বউ

১.৪ সনাতন ঘুম বলতে রবীন্দ্রনাথ কী বুঝিয়েছেন?-

(ক) আদিমকালের ঘুম

(খ) অন্ধকারে ঘুম

(গ) ভাতঘুম

(ঘ) চিরকালের ঘুম

১.৫ যামিনীর মা তেলেনাপোতাকে বলেছে

(ক) মৃত্যুপুরী

(খ) স্বর্গপুরী

(গ) পাতালপুরী

(ঘ) প্রেতপুরী

১.৬ কার উৎসাহে হাঙর ধরার উপকরণ সংগৃহীত হয়েছিল? –

(ক) আরব মিঞা

(খ) খালাসি

(গ) লেখক

(ঘ) সেকেন্ড ক্লাসের ফৌজি

১.৭ যে মাছগুলি হাঙরের আশে-পাশে ঘুরছিল, পিঠে চড়ে বসছিল তাদের নাম ছিল

(ক) বনিটো

(গ) চোষক

(খ) ম্যাকরেল

(ঘ) পাইলট ফিস্

১.৮ গ্যালিলিওর দূরবিনে ধরা পড়েছিল –

(ক) মঙ্গলের উপগ্রহ

(গ) পৃথিবীর নক্ষত্র

(খ) বৃহস্পতির চাঁদের ছবি

(ঘ) মঙ্গলের চাঁদের ছবি

১.৯ আরশি শব্দের অর্থ কী?

(ক) আয়না

(খ) পড়শী

(গ) কাচ

(ঘ) ছায়া

১.১০ ‘নীলধ্বজের প্রতি জনা’ কবিতায় পার্থকে নীলধ্বজ কী জ্ঞানে পূজা করেছিলেন? –

(ক) নারায়ণ

(খ) শিব

(গ) ব্রহ্মা

(ঘ) ইন্স

১.১১ দ্বীপান্তর কথার অর্থ হল-

(ক) অন্য দ্বীপ

(খ) সবুজ দ্বীপ

(গ) অনেক দ্বীপ

(ঘ) দ্বীপের বাইরে

১.১২ ‘নুন’ কবিতার কথকের দিন যায় –

(ক) হেসে খেলে

(খ) আহ্লাদে

(গ) অসুখে ধারদেনাতে

(ঘ) খুশিতে

১.১৩ থুরথুরে বুড়োর একমাত্র অতিপ্রাকৃত শক্তি হল

(ক) জাদু

(খ) ম

(গ) ধৈর্য

(ঘ) জলপড়া

১.১৪ বাংলা ভাষার জন্ম হয়েছে

(ক) সংস্কৃত থেকে

(খ) শৌরসেনী প্রাকৃত থেকে

(গ) পৈশাচী প্রাকৃত থেকে

(ঘ) মাগধী প্রাকৃত থেকে

১.১৫ ‘পথের দাবী’ উপন্যাসটি কার লেখা ?

(ক) বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়

(খ) শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়

(গ) তারাশঙ্কর বন্দ্যোপাধ্যায়

(ঘ) ধূর্জটিপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়

১.১৬ ‘মরীচিকা’, ‘মরুশিখা’ ও ‘মরুমায়া’ কাব্যগ্রন্থগুলির লেখক হলেন-

(ক) যতীন্দ্রনাথ সেনগুপ্ত

(খ) মোহিতলাল মজুমদার

(গ) কাজী নজরুল ইসলাম

(ঘ) সত্যেন্দ্রনাথ দত্ত

১.১৭ মধ্যভারতীয় আর্যভাষার আনুমানিক সময়কাল –

(ক) ৬০০ খ্রিঃপূঃ – ৯০০ খ্রিস্টাব্দ

(খ) ৬০০ খ্রিঃপূঃ ১৫০ খ্রিস্টাব্দ,

(গ) ৬০০ খ্রিঃপূঃ ১০০০ খ্রিস্টাব্দ,

(ঘ) ৬০০ খ্রিঃপূঃ – ১২০০ খ্রিস্টাব্দ

১.১৮ শর বা কাঠ দিয়ে লেখা হত যে লিপি, তা হল

(ক) চিত্রপ্রতীক লিপি

(খ) চিনীয় লিপি

(গ) বাণমুখ লিপি

(ঘ) স্বরলিপি

২। অনধিক কুড়িটি শব্দে প্রশ্নগুলির উত্তর দাও : ১×১২=১২

২.১ ‘যবে দেশ-দেশান্তরে জনরব লবে / এ কাহিনী – কী কহিবে ক্ষত্ৰপতি যত?’ – কোন্ কাহিনির কথা বলা হয়েছে?

২.২ ‘আমি কেমনে সে গাঁয় যাই রে,’ – বক্তা সে গাঁয়ে যেতে পারছেন না কেন ?

২.৩ ‘বেজেছে বাণীর সেতারে আজ?’ – বাণীর সেতারে কবি কী – শুনতে চেয়েছেন ?

২.৪ ‘নুন’ কবিতাটি কোন্ কাব্যগ্রন্থ থেকে নেওয়া হয়েছে?

২.৫ অন্য সব দেশে যত ঘানি ঘোরে তার থেকে তেল বেরোয় … – এই তেল কী কাজে ব্যবহার হয়?

২.৬ ‘আপনার দুই বন্ধু তখন দুই কারণে অচেতন। কারণ দুটি কী কী?

২.৭ “কিন্তু পুঁতবো কোথায়?’ – কথকের এ মন্তব্যের কারণ কী?

২.৮ ‘দ্বীপান্তরের বন্দিনী’ কবিতায় বিধির বেতার-মন্ত্র কী?

২.৯ “দুঃখের কথা, হায়, কব কারে?’ – বক্তা কে?

২.১০ ´ আমার যম-যাতনা যেত দূরে’ – কীভাবে তা সম্ভব?

২.১১ বাংলা সাহিত্যে ব্যবহৃত গদ্য উপভাষার প্রধান অথবা,ঋগবেদ কোন ভাষায় রচিত? রূপ দুটি কী কী?

২.১২ ‘ইন্দো-ইরানীয় শাখাটি যে দুটি শাখায় বিভক্ত হয়েছিল সেই শাখাদুটির নাম লেখো।

অথবা নব্য ভারতীয় আর্যভাষার বিস্তারকাল উল্লেখ করো।

৩। অনধিক একশো পঞ্চাশ শব্দে যে-কোনো একটি প্রশ্নের উত্তর দাও:

৩.১ ‘কর্তার ভূত’ – কি নিছক ভূতের গল্প নাকি রাজনৈতিক রূপক কাহিনি? ব্যাখ্যা সহ লেখো।

৩.২ ‘ডাকাতের মা’ ছোটোগল্প অবলম্বনে সৌণীর মায়ের চরিত্র বিশ্লেষণ করো।

৪। অনধিক একশো পদ্মাশ শব্দে যে কোনো একটি প্রশ্নের উত্তর দাও :

৪.১ “মানবজাতির উন্নতির বর্তমান অবস্থার জন্য যতগুলি কারণ প্রাচীনকাল থেকে কাজ করেছে তার মধ্যে বোধহয় ভারতের বাণিজ্য সর্বপ্রধান” – কোন্ কোন্ জিনিসের আশায় পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে ভারতে বাণিজ্য শুরুর আগে কোন্ কোন্ পথে কীভাবে ভারতের সঙ্গে অন্যান্য দেশগুলি বাণিজ্য করতে আসত? সুয়েজ খাল খননের পর বাণিজ্যে কী কী সুবিধা হয়েছিল? ১+৩+১

৪.২ ক্যাথলিক খ্রিস্টান যাজকদের সঙ্গে গালিলিওর বিরোধের কারণ কী? গালিলিওর জীবনের শেষ ন-বছর যে অবস্থায় কেটেছিল তার বিবরণ দাও। ২+৩

৫। অনধিক একশো পঞ্চাশ শব্দে যে-কোনো দুটি প্রশ্নের উত্তর দাও :

৫.১ “মহারথীপ্রথা কি হে এই, মহারথী” “মহারথী প্রথা’ কী? কে, কীভাবে এই প্রথার উল্লেখ করেছিল তার বর্ণনা দাও।১+৪

৫.২ “তবু লক্ষ যোজন ফাঁক রে” – কাদের মধ্যে লক্ষ যোজন ফাঁক? একত্র থেকেও এই দূরত্বের কারণ কী? ১+৪

৫.৩ ‘দ্বীপান্তরের বন্দিনী’ কবিতায় কবির স্বদেশপ্রেম কীভাবে প্রকাশিত হয়েছে আলোচনা করো।

৫.৪ “আমাদের শুকনো ভাতে লবণের ব্যবস্থা হোক” কারা, কাদের কাছে এই দাবি করেছে? এই দাবি কতটা যুক্তিসংগত? ১+৩

৬। অনধিক একশো পঞ্চাশ শব্দে যে-কোনো একটি প্রশ্নের উত্তর দাও :

৬.১ “বাড়ির মালিকদের অবশ্য বিলাপ করার কোনোই কারণ ছিল না” – বাড়ির মালিকদের নাম কী? তাদের বিলাপ করার কারণ ছিল না কেন ? ১+৪

৬.২ ‘শিক্ষার সার্কাস’ কবিতাটির নামকরণের সার্থকতা আলোচনা করো।

৭। অনধিক একশো পঞ্চাশ শব্দে যে-কোনো দুটি প্রশ্নের উত্তর দাও : ৫×2=10

৭.১ ‘গুরু’নাটকে মোট কটি গান আছে? শেষ গানটি কার জন্য গাওয়া হয়েছে? গানটির মর্মার্থ লেখো। ১+১+৩

৭.২ ‘পঞ্চকদাদা বলেন অচলায়তনে তাঁকে কোথাও ধরবে না” বক্তা কে? পাকদাদা কে? ‘তাকে’ বলতে কাকে বোঝানো হয়েছে? তাকে কোথাও ধরবে না’ – পঞ্চকদাদার এরকম মনে হয়েছে কেন? ২+৩

৭.৩ “পৃথিবীতে জন্মেছি, পৃথিবীকে সেটা খুব কষে বুঝিয়ে দিয়ে তবে ছাড়ি” – কে, কোন্ প্রসঙ্গে এই উক্তি করেছে? উক্তিটির তাৎপর্য বুঝিয়ে দাও।

৮। অনধিক একশো পঞ্চাশ শব্দে যে-কোনো দুটি প্রশ্নের উত্তর দাও:

৮.১ চর্যাপদের পুথি কে আবিষ্কার করেন। আনুমানিক কোন সময়ে চর্যাপদগুলি রচিত হয়েছিল? এই পদগুলিতে তৎকালীন সমাজজীবনের যে প্রতিফলন দেখা যায়, সংক্ষেপে লেখো। ১+১+৩

৮.২ শ্রীচৈতন্যদেব কত খ্রিস্টাব্দে, কোথায় জন্মগ্রহণ করেন? বাংলা সাহিত্যে চৈতন্যদেবের প্রভাব আলোচনা করো।

৮.৩ মাইকেল মধুসুদন দত্তের দুটি নাটকের নাম লেখো। নাট্যকার হিসেবে তাঁর কৃতিত্ব আলোচনা করো।

৮.৪ লোককথা কাকে বলে? লোককথার যে-কোনো দুটি শাখার সংক্ষিপ্ত পরিচয় দাও।

৯। অনধিক একশো পঞ্চাশ শব্দে যে কোনো একটি প্রশ্নের উত্তর দাও:

৯.১ প্রাকৃত ভাষার এইরূপ নামকরণের কারণ কী? এই ভাষার তিনটি আঞ্চলিক রূপের নাম লেখো।

৯.২ অবর্গীভূত ভাষা কাকে বলে? পৃথিবীর উল্লেখযোগ্য কয়েকটি অবর্গীভূত ভাষার পরিচয় দাও।

৯.৩ বাংলা লিপির উদ্ভব ও বিকাশ সম্পর্কে আলোচনা করো।

আরোও পড়ুন

Leave a Comment